২১শে এপ্রিল, ২০১৯ ইং, ৮ই বৈশাখ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ, ১৬ই শাবান, ১৪৪০ হিজরী

লেদায় আগুনে ক্ষতিগ্রস্ত রোহিঙ্গা পরিবারকে বিস্কিট ও কম্বল বিতরণ

Wednesday,20 March 2019

teknafbarta24.com

লেদায় আগুনে পুড়ে যাওয়া ক্ষতিগ্রস্ত রোহিঙ্গা পরিবারের হাতে শুকনা খাবার তুলে দিচ্ছেন আন্তর্জাতিক এনজিও সংস্থা আইওএম এর কর্মীরা।

নিজস্ব প্রতিবেদক, টেকনাফ : টেকনাফ উপজেলার লেদা রোহিঙ্গা শিবিরে ক্যাম্প ২৪ (অনিবন্ধিত) চুলা থেকে আগুন লেগে ১৭টি ঘর পুড়ে গেছে। পরে আগুন গ্যাস সিলিন্ডারে লাগলে বিস্ফোরণ হয়ে অন্যান্য ঘরগুলোতে ছড়িয়ে পড়ে। ক্ষতিগ্রস্ত ১৭ পরিবারকে আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা (আইওএম) সাইট ম্যানেজমেন্ট এর সমনয়ে শুকনা খাবার বিস্কিট, খিচুড়ি ও কম্বল বিতরণ করা হয়।

বুধবার (২০ মার্চ) সকাল ১০টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, আজ বুধবার সকালে হঠাৎ করে রান্নার চুলা থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়। পরে সেটি গ্যাস সিলিন্ডারে লাগলে সাথে সাথেই বিস্ফোরণ হয়ে আগুন পাশের ঘরগুলোতে ছড়িয়ে পড়ে। প্রথমে হাসিনা বেগমের ঘরে আগুন লাগে। পরে আগুন আশপাশে ছড়িয়ে পড়ে। পরে ক্যাম্পে কর্মরত আইওএম এর কর্মী ও রোহিঙ্গারা আগুন নির্বাপক সিলিন্ডার দিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এ ঘটনায় ২০টি ঝুপড়ি ঘর পুড়ে যায়। তবে কেউ দগ্ধ না হলেও ঘরে থাকা বিভিন্ন পণ্য আগুনে পুড়ে গেছে।

আগুন নেভাতে চেষ্টা করছেন আন্তর্জাতিক এনজিও সংস্থা আইওএম এর একজন কর্মী।

টেকনাফ নিবন্ধিত নয়াপাড়া রোহিঙ্গা শিবিরের পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর জানান, ‘লেদা রোহিঙ্গা শিবিরের পাশে আবদুল সালাম নামে এক স্থানীয় ব্যক্তির জমিতে আশ্রিত রোহিঙ্গাদের ঘর থেকে সিলিন্ডার বিস্ফোরণ হয়ে আগুনের সূত্রপাত হয়। তবে বিষয়টি আরও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। শিবিরে যেন কোনও অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে সেজন্য আইনশৃঙ্খলাবাহিনীর সদস্যরা নজর রাখছে।

টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ রবিউল হাসান বলেন, ‘আগুনের খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস পাঠানো হয়েছে। আমি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি।’

টেকনাফ বার্তা ২৪ এ প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য লিখুন

মন্তব্য